বাংলা সহায়ক

নানা রঙের দিন -- অজিতেশ বন্দ্যোপাধ্যায়



নানা রঙের দিন -- অজিতেশ বন্দ্যোপাধ্যায়।
মূল নাটক : আন্তন চেকভ এর -- Swan Song

 চরিত্রলিপি : 
রজনীকান্ত চট্টোপাধ্যায়- বৃদ্ধ অভিনেতা বয়স-৬৮ বছর। 
কালীনাথ সেন-- প্রম্পটার। বয়স-৬০ বছর। 

সঠিক উত্তরটি নির্বাচন করো :

১) মঞ্চের মাঝখানে ছিল -- একটি ওলটানো টুল। 
২) রজনীকান্ত চট্টোপাধ্যায় মঞ্চে প্রবেশ করেন-- দিলদারের পোশাক পরে। তাঁর হাতে ছিল-- জ্বলন্ত মোমবাতি।  
৩) বারোটা বেজে গেছে আমার -- বক্তা --রজনীকান্ত চট্টোপাধ্যায়। 
 ৪) রজনীকান্ত রামব্রিজকে বকশিশ দিয়েছিল-- ৩ টাকা। 
 ৫) "আমি লাস্ট সিনে প্লে করব না ভাই। "-- বক্তা-- রজনীকান্ত।
 ৬) রজনীকান্ত কত বছর ধরে থিয়েটারে রয়েছেন? -- ৪৫ বছর। 
 ৭) থিয়েটার করার আগে রজনীকান্ত কী করতেন? --- পুলিশের চাকরি। 
 ৮) "ভোরের আলোর চেয়েও সুন্দর সে"--- রজনীকান্তের প্রেমিকা। 
 ৯) রজনীকান্তের প্রেমিকা রজনীকান্তকে কার পার্ট করতে দেখেছিল --- আলমগীরের। 
 ১০) যারা বলে নাট্যাভিনয় একটি পবিত্র শিল্প তারা সব --- গাধা। 
 ১১) "শাহজাদি ! সম্রাটনন্দিনী ! মৃত্যুভয় দেখাও কাহারে ? "-- রিজিয়া নাটকে বক্তিয়ার। 
 ১২) "পুত্র ! রাজনীতি বড়ো কূট। "-- বক্তা -- ঔরঙ্গজীব। 
 ১৩) "এর নাম যদি রাজনীতি হয়, তাহলে সে রাজনীতি আমার জন্য নয়। "-- বক্তা -- মহম্মদ। (সাজাহান নাটক) 
 ১৪) "আমি স্পষ্ট বুঝতে পারছি কালীনাথ। "-- বক্তা বুঝতে পেরেছিলেন তাঁর প্রতিভা এখনও মরেনি। 
১৫) "আজ তবে হাসো, কথা কও, গাও যা দিয়ে আমাকে এতদিন ছেয়ে দিতে, ঘিরে বসে থাকতে ! / তোমার বীণাটি পাড়ো ! "-- সুজা পিয়ারাবানুকে বলেছে। 
 ১৬) "তোমার প্রেমে আমাকে আবৃত করে দাও। /আজ সারারাত্রি ঘুমাব না। "--- সুজা পিয়ারাবানুকে বলেছে। 
 ১৭) শিল্পকে যে মানুষ ভালোবাসেছে ---- তার বার্ধক্য নেই, একাকীত্ব নেই, রোগ নেই। 
 ১৮) Oh, now forever/ Farewell the tranquil mind ! --- শেক্সপিয়রের ওথেলো নাটক। 
 ১৯) A horse ! A horse ! My kingdom for a horse ! --- শেক্সপিয়রের রিচার্ড III 
২০) অজিতেশ বন্দ্যোপাধ্যায় প্রতিষ্ঠিত নাট্যদল -- নান্দীমুখ। 
২১. “মাইরি এই না হলো অ্যাকটিং!” একথা বলেছে
(ক) কালীনাথ (খ) রজনীবাবু (গ) দর্শক (ঘ) রামব্রিজ
উত্তর :  (খ) রজনীবাবু
২২. “Life's but a walking shadow” – কোন নাটকে কথাগুলি আছে?
(ক) ম্যাকবেথ (খ) কিংলিয়র (গ) হ্যামলেট (ঘ) ওথেলো
উত্তর : (ঘ) ওথেলো
২৩. “গ্রিনরুমে ঘুমোই..”– কে ঘুমোন?
(ক) কালীনাথ সেন (খ) রামব্রীজ (গ) রজনীকান্ত চট্টোপাধ্যায় (ঘ) রামচরণ
উত্তর : (ক) কালীনাথ সেন
২৪. “তারপর একদিন চাকরিটা ছেড়ে দিলাম কারণ~
(ক) স্বাধীনভাবে জীবন চালাতে চাইলাম (খ) নাটক নিয়ে জীবন শুরু করলাম (গ) ভালো চাকরির আশায় তৈরি হতে লাগলাম (ঘ) ব্যবসায়ী হওয়ার তালিম চলতে লাগল
উত্তর : (খ) নাটক নিয়ে জীবন শুরু করলাম
২৫. “আর জীবনে ভোর নেই, সকাল নেই, দুপুর নেই, সন্ধেও ফুরিয়েছে- এখন শুধু”
(ক) মৃত্যুর অপেক্ষা (খ) মাঝ রাত্রির অপেক্ষা (গ) বার্ধক্যের অপেক্ষা (ঘ) স্বপ্নের অপেক্ষা
উত্তর :  (খ) মাঝ রাত্রির অপেক্ষা
২৬. “আমার শিরায় শিরায় কি জল বইছে? রক্ত বইছে না?” বক্তার শিরায় শিরায় বইছে—
(ক) রাজরক্ত (খ) নেশার রক্ত (গ) সদবংশের রক্ত (ঘ) পবিত্র রক্ত
উত্তর : (গ) সদবংশের রক্ত
২৭. “এক পা এক পা করে এগিয়ে চলেছে”—
(ক) গ্রিনরুমের দিকে (খ) মৃত্যুর দিকে (গ) অডিটোরিয়ামের দিকে (ঘ) বাড়ির দিকে
উত্তর :  (খ) মৃত্যুর দিকে

সংক্ষিপ্ত উত্তরভিত্তিক প্রশ্নাবলি :  [মান ১]
১.  নানা রঙের দিন নাটকের প্রারম্ভে যে মঞ্চসজ্জার বিবরণ আছে তা লেখো। 
উত্তর : একটি পেশাদারী থিয়েটারের মঞ্চ। পেছনে রয়েছে রাত্রে অভিনীত নাটকের অবশিষ্ট দৃশ্যপট, জিনিসপত্র আর যন্ত্রপাতি। মঞ্চের মাঝখানে একটা ওল্টানো টুল। 
২. “কাম অন, কুইক! মহম্মদের ক্যাচটা দাও তো”– মহম্মদ কে? কে মহম্মদের ক্যাচ দিয়েছিলেন ?
উত্তর : মহম্মদ হলেন মোগল সম্রাট ঔরঙ্গজেবের পুত্র। মহম্মদের ক্যাচ দিয়েছিলেন প্রম্পটার কালীনাথ সেন।
৩. “এই তো জীবনের সত্য কালীনাথ”– সত্যটি কী ?
উত্তর :  যার প্রতিভা আছে বয়স তার প্রতিবন্ধক হয় না। বয়সে তার কিছু যায় আসে না। এটাই তো জীবনের সত্য ও এই সত্যই উপলদ্ধি হয়েছে রজনীকান্তের।
৪. “মৃত্যুভয়ের ওপর সে তো হাসতে হাসতে ডাকাতি করতে পারে”– কে ডাকাতি করতে পারে ?
উত্তর : যে মানুষ শিল্পকে ভালোবেসেছে সে বার্ধক্য, একাকিত্ব, রোগকে জয় করে মৃত্যুভয়কেও হাসতে হাসতে ডাকাতি করতে পারে।
৫. “যা করেছি ধর্মের জন্য"--- ধর্মের জন্য কে, কী করেছিলেন?
উত্তর :  'নানা রাঙা দিন’ নাটকে নাট্যকার অজিতেশ বন্দ্যোপাধ্যায় সাজাহান’ নাটকের প্রসঙ্গ উত্থাপন করেছেন। নাটকটিতে দেখা যায়, ঔরঙ্গজেব ধর্মের জন্য সকলকে খুন করে সিংহাসন দখল করেছিলেন।
৬. “তখন মনে মনে কত আশা, কত প্ল্যান”– কে, কীসের আশা বা প্ল্যান করেছিলেন?
৭. 'নানা রঙের দিন’ নাটকে তরুণ রজনী অভিনয় জীবনে একটি মেয়ের প্রেমে পড়েছিলেন, সেই মেয়েটিকে বিয়ে করার আশা বা প্ল্যানের কথাই এখানে বলা হয়েছে।
৮. "একেবারে বেঘোরে মারা পড়বো তাহলে"-- কেন? 
উত্তর : রজনীকান্ত চট্টোপাধ্যায় যদি মালিককে বলে দেন যে কালীনাথ রোজ রাতে গ্রিনরুমে ঘুমায়। কারণ কালীনাথের ঘুমোবার কোনো জায়গা নেই। 
৯. “বাঃ বাঃ বুঢ্ঢা। আচ্ছা হি কিয়া।” কে, কাকে একথা বলেছেন?
উত্তর : 'নানা রঙের দিন’ নাটকে আলোচ্য কথাগুলি রজনী রামব্রীজকে বলেছেন।
১০. “ও কী বললো জানো?” এখানে ‘ও’ বলতে কার কথা বলা হয়েছে? সে কাকে, কী বলেছিল?
উত্তর :  'নানা রঙের দিন’ নাট্যাংশ থেকে উদ্ধৃতাশংটিতে রজনীর প্রেমিকার কথা বলা হয়েছে। রজনী তাকে বিয়ে করতে চাইলে সে রজনীকে অভিনয় পেশা ত্যাগ করতে বলেছিল।
১১. সেই রাত্রেই জীবনে প্রথম মোক্ষম বুঝলুম কী বুঝেছিলেন? 
উত্তর : যারা বলে 'নাট্যাভিনয় একটি পবিত্র শিল্প' তারা সব গাধা অথবা মিথ্যাবাদী। 
১২. "আমি স্পষ্ট বুঝতে পারলাম কথাটা" কোন কথা ? 
উত্তর : প্রাক্তন অভিনেতা রাজ্যের প্রতিভার অপমৃত্যু করুন সংবাদ। 
১৩. “তার দরুন আজ সন্ধেবেলা নগদ তিনটে টাকা বকশিশও দিলুম ওকে”-- কাকে, কী কারণে বকশিশ দেওয়া হয়েছিল ?
উত্তর : অভিনেতা রজনীকান্ত চট্টোপাধ্যায় রামব্রীজকে তিন টাকা বকশিশ দিয়েছিলেন, কারণ গত রাতে রজনী মদ গিলে গ্রিনরুমে পড়েছিলেন। তাকে ঘুম থেকে তুলে ট্যাক্সিতে তুলে দিয়েছিলেন রামব্রীজ।
১৪. "আর একদিন তাকে দেখে মনে হয়েছিল"--- কাকে দেখে কি মনে হয়েছিল ?
উত্তর : রজনীকান্তের প্রেমিকাকে দেখে রজনীকান্তের মনে হয়েছিল ভোরের আলোর চেয়েও সে সুন্দর। 

রচনাধর্মী প্রশ্নোত্তর [মান ৫]

১. 'নানা রঙের দিন’ নাটকটির নামকরণের সার্থকতা বিচার করো।
২.  "দেখেছ রজনী চাটুজ্জে ইজ রজনী চাটুজ্জে-মরা হাতি সোয়া লাখ।"- উক্তিটির আলোকে রজনী চরিত্রটি বিশ্লেষণ করো।
৩. "সেই রাত্রে জীবনে প্রথম মোক্ষম বুঝলুম"--বক্তা কী বুঝেছিলেন? কেন তার এমন ধারণা হয়েছিল? 
৪.   "শিল্পকে যে মানুষ ভালোবেসেছে-তার বার্ধক্য নেই কালীনাথ।"-কোন প্রসঙ্গে কথাটি বলা হয়েছে? উক্তিটির তাৎপর্য লেখো ।
৫. "ওরই মধ্যে কোথাও যেন আগুন লুকিয়েছিল।"- কোন প্রসঙ্গে কে একথা বলেছে? বক্তার এমন মন্তব্যের কারণ কী ?
৬.  ‘আমাদের দিন ফুরিয়েছে’- কে কোন প্রসঙ্গে এই উক্তি করেছেন? বক্তার এই উপলব্ধির কারণ ব্যাখ্যা কর।
৭.  “যারা বলে ‘নাট্যাভিনয় একটি পবিত্র শিল্প’- তারা সব গাধা”- বক্তার এই মনোভাবের কারণ কী?  
অথবা   “তোমার ওই পাবলিক… কাউকে বিশ্বাস করিনা”- বক্তার বিশ্বাস না করার কারণ কী ?
  ৮. "আপনার মতো লোকের এত দুঃখ ।"-কে কাকে একথা বলেছে? উদ্দিষ্ট ব্যক্তির দুঃখের বর্ণনা দাও।
৯. "এই তো জীবনের সত্য কালীনাথ।"- জীবনের সত্য বলতে বক্তা কী বুঝিয়েছেন? বক্তা কীভাবে জীবনের এই সত্যে উপনীত হলেন তা নাটক অনুসরণে লেখো।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

4 মন্তব্যসমূহ